শুক্রবার, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৭:০০ পূর্বাহ্ন

শিরোনাম :
রাজধানী থেকে প্রায় এক কোটি টাকার মাদক উদ্ধার নতুনধারা রংপুর-রাজশাহীর সমন্বয়কারী হলেন নিপা অসহায় রাজিয়ার পাশে দাঁড়ালেন সুজন লালপুরের সংঘবদ্ধ হ্যাকার চক্রের ৮ সদস্য গ্রেপ্তার তানোরে বিনামুল্য কৃষি উপকরণ বিতরণ ই-অরেঞ্জ বিনিয়োগ করা টাকা ফেরতের দাবিতে গ্রাহকদের মিছিলে পুলিশের লাঠিচার্জ ক্রেতাদের স্বাচ্ছন্দ্য বৃদ্ধিতে বনশ্রীতে স্যামসাং অথোরাইজড সার্ভিস সেন্টার উদ্বোধন করলো জবাই বিলের নাম শুনলে আড়ৎদারদের মাছ কেনার প্রতি আগ্রহ বাড়ে-খাদ্যমন্ত্রী বোচাগঞ্জে রাইস গ্রেইন ভেলু চেইন একটরর্স মিটিং নোয়াখালীরবেগমগঞ্জে অস্ত্র-গুলিসহ কিশোর গ্যাং সদস্য গ্রেফতার বাতিল হচ্ছে ২১০পত্রিকার ডিক্লারেশন,দেওয়া হবে নতুন ডিক্লারেশন ট্যাক্সিক্যাব চালিয়ে তিন বছরে পবিত্র কোরআন মুখস্থ করেন এক ব্রিটিশ মুসলিম কাভার্ড ভ্যান-ট্রাক মালিক-শ্রমিকদের কর্মবিরতি প্রত্যাহার করোনায় আরও ৩৬ মৃত্যু, শনাক্ত ১,৩৭৬ যার ওপর সূর্য উদিত হয়েছে তার মধ্যে সর্বশ্রেষ্ঠ দিন হল জুমার দিন

পলাশবাড়ীতে ২ কোটি ৫৮ লক্ষ টাকা ব্যায়ে আখিরা নদী খনন প্রকল্প বাস্তবায়ন কাজে অনিয়ম!

 

 

বায়েজীদ (গাইবান্ধা) :

 

প্রকল্পের আওতায় গাইবান্ধা জেলার পলাশবাড়ী উপজেলার শিশুদহ হতে আকবার পুর পর্যন্ত সারে ৮.৪৬ কিলোমিটার ২০. ০০০কিলোমিটারের মধ্যবর্তী ১০ কিলোমিটার আখিরা নদী পুনঃ খননের জন্য ২ কোটি ৫৮ লক্ষ ৩৪ হাজার ১শ ৭৭ টাকা বরাদ্দ প্রদান করে দরপত্র আহবান করা হয়।

 

বিধি মোতাবেক ডাব্লিউ ০৪/২০১৮-২০১৯ ই টেন্ডার নং ২৫৬৮৪৯ মুলে সর্বোচ্চ দরদাতা হিসেবে কাজটি পায় গাইবান্ধা জেলা সদরের ভিএইচ রোডের ঠিকাদার খাদেমুল ইসলাম জুয়েল।

 

কাজটির প্রাক্কলিত মুল্য ২ কোটি ৫৮ লক্ষ ৩৪ হাজার ১শ ৭৭ টাকা। চুক্তি মুল্য নিদ্ধারন করা হয় ২ কোটি ৩২ লক্ষ ৫০ হাজার ৭শ ৪৯ টাকা।

 

গত ২৪ শে জানুয়ারি ২০১৯ সংশ্লিষ্ট ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠানকে কার্যাদেশ প্রদান করে পানি উন্নয়ন বোর্ড।

 

কার্যাদেশ পেয়ে এবছরের ২৭ জানুয়ারী ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান টি নদী পুর্নঃখননের কাজ শুরু করে।

 

শুরু থেকেই প্রকল্পটি বাস্তবায়নে অনিয়মের আশ্রয় গ্রহণ করা হয়েছে বলে জানায় এলাকাবাসী।

 

সুলতানপুর বাড়াইপাড়া গ্রামের নুরুল ইসলাম জানান শুধু মাত্র ভেকু দিয়ে নদীর দুপার্শ্বে মাটি সড়িয়ে উচু স্লোপ করে গভীরতা বুঝানোর চেষ্টা করা হয়েছে।

 

তিনি আরো জানান নদীর তলদেশ থেকে কোন মাটি তোলা হয় নি। শুধু মাত্র স্লোপ ধরে মাপ দিয়ে ৮/১০ ফুট খনন দেখানো হয়েছে।

 

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক বেংগুলিয়া ও গনেশপুর এলাকার বেশ কয়েকজন মানুষ জানায় নদী খননে নাম মাত্র কাজ করা হচ্ছে। স্থানীয় কতিপয় দু একজন রাজনীতিবিদদের নাম ভাঙ্গিয়ে ঠিকাদার এই অনিয়মের আশ্রয় গ্রহণ করা হয়েছে।

কিছু দিন কাজ করার পড় বর্তমানে কাজ বন্ধ রয়েছে।

তারা আরো জানায় যৎ সামান্য কাজ করে কতিপয় অসাধু কর্মকর্তাকে ম্যানেজ প্রক্রিয়ার মাধ্যমে সময়ের সাথে সাথে এভাবেই একদিন চুড়ান্ত বিল তুলে নিবে ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান।

 

নদী খনন প্রকল্পে অনিয়মের বিষয়ে সংশ্লিষ্ট ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠানের সাথে যোগাযোগ করার চেষ্টা করে ও মতামত গ্রহণ করা সম্ভব হয় নি।

 

তবে পানি উন্নয়ন বোর্ডের উপসহকারী প্রকৌশলী মোজাম্মেল হক জানান নদীতে পানি বৃদ্ধি হওয়ার কারনে কাজ এখন ও শেষ হয় নি। কত শতাংশ কাজ হয়েছে জানতে চাইলে ৪০ শতাংশ কাজ হয়েছে বলে নিশ্চিত করেন। অবশিষ্ট কাজ নদীর পানি শুকালে করা হবে হবে তিনি নিশ্চিত করেছেন।

 

এলাকাবাসীর দাবি নদী খননের কোটি কোটি টাকা নাম মাত্র কাজ করে যাতে কেউ পকেটস্থ না করে সেদিকে লক্ষ রাখার জন্য সংশ্লিষ্ট উর্ধতন কর্তৃপক্ষের সদয় হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।

 

Please Share This Post in Your Social Media

https://twitter.com/WDeshersangbad

https://www.facebook.com/Dsangbad

https://www.facebook.com/Dsangbad

All rights reserved © deshersangbad.com 2011-2021
Design And Developed By Freelancer Zone